মঙ্গলবার, ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৭:৪০ অপরাহ্ন

করোনা সর্বশেষঃ
*** গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও ৪৩ জন মারা গেছেন। এনিয়ে এখন পর্যন্ত মারা গেছেন ৪ হাজার ৮০২ জন। নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছেন ১ হাজার ৭২৪ জন। করোনাভাইরাসে এখন পর্যন্ত মোট শনাক্ত হয়েছেন ৩ লাখ ৪১ হাজার ৫৬ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ২ হাজার ৪৩৯ জন। এ নিয়ে মোট সুস্থ হয়েছেন ২ লাখ ৪৫ হাজার ৫৯৪ জন।***  
সর্বশেষ সংবাদঃ
২০৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ দাঁড়াবে উন্নত রাষ্ট্রের কাতারে শামুকের পাশাপাশি ঝিনুক সংরক্ষণে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ আজ থেকে এনআইডি জালিয়াতি নির্মূলে মাঠপর্যায়ে চলবে শুদ্ধি অভিযান! মহামারি করোনারঃ জেএসসি পরীক্ষার্থীদের পরবর্তী শ্রেণিতে উত্তীর্ণের নির্দেশনা প্রধানমন্ত্রীর অনুমোদনঃ খালেদা জিয়াকে আরও ৬ মাসের মুক্তি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন আরও ৪৩ জন, নতুন আক্রান্ত ১৭২৪ জন কেন্দ্রীয়ভাবে নয়,শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেবে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়গুলোঃ মন্ত্রিপরিষদ সচিব না ফেরার দেশে চলে গেলেন সাদেক বাচ্চু হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি ক্যাসিনোকাণ্ডে আলোচিত সম্রাট তুর্কি প্রেসিডেন্ট এরদোগানকে সপরিবারে বাংলাদেশ সফরে আমন্ত্রণ করলেন প্রধানমন্ত্রী মোংলায় হরিনের মাংস ভাগাভাগির ছবি তোলায় সাংবাদিকের উপর হামলা, থানায় জিডি মোংলায় স্কুটি কিনে না দেওয়ায় অভিমানে কলেজ ছাত্রীর আত্বহত্যা ছাত্রলীগ নেতা ভাগিয়ে নিয়ে গেলেন আ.লীগ নেতার স্ত্রীকে! কোটা থাকছে না সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক নিয়োগে একাদশ শ্রেণির ক্লাস শুরু অক্টোবর থেকে

শামুকের পাশাপাশি ঝিনুক সংরক্ষণে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ

শামুকের পাশাপাশি ঝিনুক উন্নয়ন ও সংরক্ষণে তাগিদ দিয়ে প্রধানমন্ত্রী দেশজ প্রতিটি উদ্ভিদ ও প্রাণীকে সংরক্ষণে নির্দেশ প্রদান করেছেন বলে জানান পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান। 

তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী সভায় বলেছেন, দেশজ যা কিছু আছে উদ্ভিদ-প্রাণী প্রত্যেকটাকে আমরা সংরক্ষণ করব। শামুক নিয়ে প্রকল্প আছে, ঝিনুক ও কাঁকড়াকেও আনতে হবে। বাংলাদেশের যা প্রাণিজ, জলজ, ভূমিজ সম্পদ আমাদের আছে, প্রত্যেকটা আইটেমকে কাজে আনতে হবে। ২০২ কোটি টাকা ব্যয়ে দেশজ প্রজাতির মাছ এবং শামুক সংরক্ষণ ও উন্নয়ন প্রকল্প নিয়ে আলোচনায় এই নির্দেশনা প্রধানমন্ত্রীর। সেই সাথে তিনি (প্রধানমন্ত্রী) আরও বলেছেন, বঙ্গবন্ধু সাফারি পার্ক যদি আরও সম্প্রসারণের প্রয়োজন হয় তাহলে জমি দেবে সরকার।

শেরেবাংলা নগরস্থ পরিকল্পনা কমিশনের এনইসি মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত সোমবার (১৪ সেপ্টেম্বর) একনেক সভায় গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সংযুক্ত হয়ে সভাপতিত্ব করার সময় এমন নির্দেশনা দেন একনেক চেয়ারপারসন ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সভাশেষে অনুষ্ঠিত প্রেস ব্রিফিংয়ে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনার কথা তুলে ধরেন পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান।

মন্ত্রী জানান, সভায় মোট বর্ধিত ৫৩৪ কোটি ৩৪ লাখ টাকা ব্যয়ের নতুন ও পুরাতন মিলে ৪টি প্রকল্প অনুমোদন দেয়া হয়। এই ব্যয়ের ৪৪০ কোটি ৯৪ লাখ টাকা বাংলাদেশ সরকারের এবং বিদেশী ঋণের উৎস থেকে যোগান দেয়া হবে ৯৩ কোটি ৪০ লাখ টাকা।

ব্রিফিংএ পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান অভিমত ব্যক্ত করে বলেন, শামুক আমাদের দেশের অনেক নাগরিকরা খায়। তারা দেশের বিভিন্ন অঞ্চলের। সুতরাং এটা দেশের ভালো বাণিজ্যিক আইটেম। আমি না খাই, আপনি তো খেতে পারেন। তিনি বলেন, মূল বার্তা হলো দেশি প্রজাতির মাছ। এগুলোকে বাঁচানো, সংরক্ষণ ও বৃদ্ধি করা। তার সঙ্গে সঙ্গে শামুক, যা একটি জলজ প্রাণী, শামুক নিয়ে অনেক কথাবার্তা হয়েছে। প্রাইম মিনিস্টার ওয়াজ হাইলি এক্সাইটেড, আমরা এটা নিয়ে কাজ করছি। কারণ, তার বাড়ি ওই অঞ্চলে। ছোটবেলায় শামুক দেখেছেন। ওই এলাকায় শামুক থেকে চুন তৈরি হয়। কোটালীপাড়ায় চুন হয়। তিনি (প্রধানমন্ত্রী) বলেন, আপনারা যে গুণগান করছেন শামুক নিয়ে, হাঁসের খাবার হয়। আরেকটা যে কাজ হয়, সেটা মনে আছে? চুন হয়।

পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের স্বাধীনতা শুধু মানুষের স্বাধীনতা নয়, বাংলার প্রকৃতি পরিবেশ সংরক্ষণ হলো আমাদের আরেকটা উদ্দেশ্য। আমরা নাগরিকরা যারা মানুষ, প্রকৃতির সামান্য অংশ। সুতরাং আমাদের শামুক, টেংরা, পুটি এদেরও সংরক্ষণ করা উচিত। এই প্রকল্পের মূল উদ্দেশ্য তাই।

পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, ভূমিকম্পের ঝুঁকি নিরূপনে আরবান রেজিলিয়েন্স প্রজেক্টের মাধ্যমে ঢাকার জন্য একটি ম্যাপও তৈরি করা হবে। তিনি বলেন, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রীদের আবাসন সংকট কাটাতে উদ্যোগ রয়েছে। ফলে নারী শিক্ষার প্রসার ঘটবে।

প্রকল্পের ব্যাপারে পরিকল্পনা কমিশনের কৃষি, পানি সম্পদ ও পল্লী প্রতিষ্ঠান বিভাগের সদস্য (সচিব) মো. জাকির হোসেন আকন্দ বলেন, ১০টি জেলার ৪৯টি উপজেলায় এই প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করা হবে। এই প্রকল্পের মাধ্যমে মাছের উৎপাদন বৃদ্ধি করা হবে। বর্তমানে দেশে মাছের উৎপাদন হলো ৩ লাখ ৯৪ হাজার মেট্রিক টন। এটাকে এই প্রকল্পের মাধ্যমে ৪ লাখ মেট্রিক টনে নেয়া হবে। বর্তমানে দেশে ৮৪ হাজার মেট্রিক টন শামুক উৎপাদন হয়। এই উৎপাদন বাড়িয়ে ১ লাখ মেট্রিক টনে উন্নীত করা হবে। তিনি বলেন, বর্তমানে বিভিন্ন কারণে মিঠপানির মাছ হারিয়ে যাচ্ছে। এসব হারিয়ে যাওয়া মাছকে ফিরিয়ে আনা হবে এই প্রকল্পের মাধ্যমে। মাছের ২শ’টি  অভয়াশ্রমকে সংস্কার এবং ১৬০টি নতুন করে অভয়াশ্রম তৈরী করা হবে। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে প্রকল্পে ঝিনুকের বিষয়টি যুক্ত করা হয়েছে।

অনুমোদিত প্রকল্পগুলো হলো, ৫৩৬ কোটি ৬৫ লাখ টাকা ব্যয়ে আরবান রেজিলিয়েন্স প্রজেক্ট রাজউক অংশ, ৫১০ কোটি ৯৯ লাখ টাকা ব্যয়ে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ভৌত অবকাঠামো উন্নয়ন প্রকল্প, ২০২ কোটি ৪ লাখ টাকা ব্যয়ে দেশীয় প্রজাতির মাছ এবং শামুক সংরক্ষণ ও উন্নয়ন প্রকল্প এবং ২৩৯ কোটি ৪ লাখ টাকা ব্যয়ে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারি পার্কের অ্যাপ্রোচ সড়ক প্রশস্তকরণ ও অন্যান্য প্রয়োজনীয় অবকাঠামো উন্নয়ন।

সংবাদটি শেয়ার করুন:

আর্কাইভ

SatSunMonTueWedThuFri
   1234
12131415161718
19202122232425
2627282930  
       
15161718192021
293031    
       
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
282930    
       
22232425262728
2930     
       
    123
45678910
11121314151617
18192021222324
       

কপিরাইট © সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত(২০১৮-২০২০) ।। শেষ খবর

Design & Developed BY Hostitbd.Com